♥ Love At 1st Sight ♥ Season 3 Part : 5

0
168

 Love At 1st Sight 
~~~ Season 3 ~~~

Part : 5

writer-Jubaida Sobti

রাহুল : [ একটু তেডি স্মাইল দিয়ে ]

♪♪♪ জান্নাত্ সাজাইয়ি্ মেনে,
তেরে লিয়ে্~~
চোড্ দি খোদাইয়ি মেনে,
তেরে লিয়ে্~~

♪♪♪♪ জান্নাত্ সা্জাইয়ি মেনে্
তে্রে লিয়ে,
চোড্ দি খো্দাইয়ি~~~

ওও ওও

তে্রে লিয়ে ঝুমু দি্ওয়ানা বান্ কে তে্রে লিয়ে
ওয়াদা্ হে মেরা্ মে হু্ তে্রে লিয়ে
হোনা কাভি্ তু জুদা্…

জারিফা : ইয়ার স্নেহা! দেখ তোর দিক তাকিয়েই গাইছে! মনে হয় তোকেই ডেডিকেট করছে😜

রাহুল : ♪♪♪ জা্রা পাস্ তু আ মেরে,
~~ ধীরে্ সে্ ছু যা মুঝে…
♪♪ খো্ যা্ ও…তে্রে পে্য়ারেমে..
বা্হমে ভা্রলে মুঝে্~~

ওও ও ও~~~

তে্রে লিয়ে~~
ঝু্মু দিওয়ানা বান্ কে ~

তে্রে লিয়ে

ওয়াদা্ হে্ মে্রা মে হু তে্~~রে লিয়ে
হোনা কাভি্ তু জুদা্~~

[ স্নেহা পেছন ফিরে চলে যাচ্ছিলো ]

শ্রেয়া : [ দৌড়ে এগিয়ে এসে ] হেই স্নেহা ওয়েট! [ স্নেহা থেমে যায় ]

জারিফা : হায়!

শ্রেয়া : হায়! গাইস্ কি ব্যাপার বলোতো তোমরা এইখানে কেনো দাঁড়িয়ে আছো ভেতরে আসো!

[ রাহুল গান গাওয়া বন্ধ করে দূর থেকে তাকিয়ে থাকে ]

জারিফা : না আসলে না! আমরা গান শুনছিলাম তাই!

শ্রেয়া : ওহ! আচ্ছা…চলো ভেতরে!

জারিফা : ওকে! [ স্নেহা দাঁড়িয়ে রইলে জারিফা হাত ধরে টেনে স্নেহাকে এগিয়ে নিয়ে যায় ]

[রাহুল আর আসিফ চেয়ারে বসে আছে,কিছুক্ষণ পর পরই রাহুল স্নেহাকে কোণা চোখে তাকাচ্ছে, স্নেহা চুপচাপ দাঁড়িয়ে আছে জারিফার পাশে…আর জারিফা বাকিদের সাথে এমন ভাবে বক বক করছে…যেন তারা তারই ফ্রেন্ডস! ]

শ্রেয়া : ওকে! গাইস্ লেটস্ ডান্স! আমাদের হাতে বেশী সময় নেই…আজকের মধ্যেই Complete করতে হবে…. So সবাই এক এক করে পার্টনার নিয়ে ডান্স শুরু করে দাও!

রাহুল চেয়ার থেকে উঠে…এগিয়ে আসছে…

জারিফা : ইয়ার! রাহুল আসছে..মনে হয় তোকেই পার্টনার করবে!

স্নেহা রাহুলের দিক তাকিয়ে ভয়ে ঘাবড়ে যাচ্ছে… ঠিক ঐ সময়ই দেখে রাহুল স্নেহাকে ক্রস করে চলে যায়…

জারিফা : এটা কি হলো!😦 আমিতো ভাবলাম রাহুল তোকেই পার্টনার করবে!

স্নেহা : হ্যা তো কি হয়েছে…ভালোই তো হলো! আমিতো এটাই চেয়েছিলাম!

জারিফা : আরে দেখ..কাকে পার্টনার করলো😧 ঐ নেকু…নেহাকে! [ রাহুল নেহার হাত ধরে নিয়ে ডান্সিং পার্টে এসে…ধীরে ধীরে ডান্স করছে! ধীরে ধীরে নেহার কোমড়ে হাত রাখছে…[ স্নেহা তাকাতেই রাহুল একটা তেডি স্মাইল দেই…তাড়াতাড়ি স্নেহা অন্যদিকে তাকিয়ে ফেলে… ]

জারিফা : স্নেহা! তুই দাড়া আমি একটু আসছি! [ জারিফা শ্রেয়ার দিক এগিয়ে যাচ্ছে হঠাৎ কারো সাথে ধাক্ষা লেগে গায়ের মধ্যে কফি ছিটকে পড়ে… বিরক্ত হয়ে তাকাতেই দেখে…রিদোয়ান ]

রিদোয়ান : কি করলে এটা?..

জারিফা : আমি করেছি?..দেখে হাটতে পারেন না?…

রিদোয়ান : এক সেকেন্ড! তোমাকে কোথায় যেন দেখেছি?…

জারিফা : কোথায় আবার?..

রিদোয়ান : হ্যা হ্যা! মনে পড়েছে…র্যাগিং হাহাহা তুমি এইখানে কি করছো?..

জারিফা : কি আর করবো..দেখছেন সবাই প্রেকটিস্ করতে এসেছে…নিশ্চয় আমিও তাই করতে এসেছি!

রিদোয়ান : কিসে পার্টিসিপেট করছো?..ডান্স অর সিংগিং?..😋

জারিফা : ডান্স!😑

রিদোয়ান : [চোখ মেরে 😉] ওয়াও! So পার্টনার পেয়েছো?..

জারিফা : [ বুঝতে পেরে! ] নো ওয়ে! [ বলেই চলে যায় ]

[ স্নেহা একা দাঁড়িয়ে আছে দেখেই পেছন থেকে কেউ এক্সকিউজ মি! বলে ডাক দিলো! স্নেহা ফিরে তাকায় ]

– হায়! আই এম সামির!😊

স্নেহা : হ্যালো!

সামির : Your! Name?…

স্নেহা : স্নেহা!

[ রাহুল দূর থেকে হঠাৎ তাকিয়ে ডান্স স্লোলি করা শুরু করে দিলো আর মনে মনে ভাবতে লাগলো এই সামির আবার স্নেহাকে কি বলছে ]

সামির : Nice name I think dance এ পার্টিসিপেট করছো রাইট?…

[ স্নেহা মাথা নাড়িয়ে অন্যদিক ফিরে যায় ]

সামির : আমিও ডান্স পার্টনার খুজছিলাম! Can I dance with you!

স্নেহা : আসলে! আমি কাঁপল ডান্স এ Interested না!

সামির : ওহ! Come on! we are friends!

স্নেহা : জি! আসলে…[ স্নেহা আর কিছু বলতে যাবে ঐ সময় সামির স্নেহার হাত ধরে টেনে ডান্সিং পার্টে নিয়ে যায় ]

জারিফা এসে দেখে স্নেহা নেই! ডান্সিং পার্টে চোখ পড়তেই দেখে স্নেহা কার সাথে যেন ডান্স করছে… মনে মনে ভাবছে ওয়াও স্নেহাতো আমার আগেই পার্টনার চুজ করে ফেললো!

রিদোয়ান : [ পেছন থেকে এগিয়ে এসে জারিফাকে শুনিয়ে ] ওহ! গড এখনো পার্টনার খুজে নিতে পারলাম না! আরে তুমি?..তুমি ও পার্টনার খুজছো নাকি কোনো?…

[ জারিফা চুপ করে দাঁড়িয়ে থাকে ]

রিদোয়ান : ফ্রি আছো?.. 😜

জারিফা : [ মাথা নাড়িয়ে ] হুম!

রিদোয়ান : পার্টনার হতে পারি?..😋আই মিন অনলি ডান্স পার্টনার..

জারিফা : [ কিছুক্ষণ ভেবে ] ওকে!

[ রিদোয়ান হাত বাড়ালে জারিফা ও হাত দেই…দুজনেই ডান্স ফ্লোরে এগিয়ে যায় ]

এইদিকে রাহুলের রাগ উঠছে স্নেহার উপর… আর মনে মনে ভাবছে আজিব ব্যাপার… ডান্স পার্টনারে আমাকে রিজেক্ট করলো…আর এইদিকে সামিরের সাথে হাতে হাত মিলিয়ে ডান্স করছে…

রাহুল : নেহা! I want ব্রেক!

নেহা : ওকে! বেবি!

রাহুল একটা পানির বোতল হাতে নিয়ে চেয়ারে বসলো…

স্নেহা রাহুলের দিক তাকাতেই দেখে…রাহুল তারদিক রাগান্বিতভাবে তাকিয়ে আছে…তাড়াতাড়ি চোখ সরিয়ে ফেলে স্নেহা!

আসিফ : [ রাহুলের পাশে এসে বসে ] Control দোস্ত Control বোতলটা যেভাবে চাপছিস কোনো মানুষ হলে এতোক্ষণে মারা যেতো!

রাহুল : Control হতে বলছিস?.. দেখ ও স্নেহার কোমোড়ে হাত দিয়েছে… আর আমি Control কেমনি হবো! স্নেহাও ওর সাথে কেমনি ডান্স করছে😠

আসিফ : একবার স্নেহার চেহেরার দিক তাকিয়ে দেখ ও Uncomfortable ফিল করছে…তার মানে বুঝতে পারছিস ও ইচ্ছে করে ডান্স করছে না..বাধ্য হয়ে করছে!

[ সামির স্নেহাকে টেনে নিয়ে কোমোড়ে স্লাইড করতে লাগলো ]

রাহুল : I can’t আসিফ! [ বলেই রাহুল উঠে স্নেহার দিক এগিয়ে যায় ]

আসিফ : [ রাহুলের পিছে দৌড়ে গিয়ে ] আরে রাহুল তুই এমন করলে আমাদের সব প্লান শেষ হয়ে যাবে…রিলেক্স রাহুল

[ রাহুল গিয়ে সোজা স্নেহাকে সামির থেকে ছুটিয়ে…টেনে নিয়ে হল থেকে বেরিয়ে যায়! ]

আসিফ : [ সামিরের দিকে তাকিয়ে ] হায় সামির! ব্রো

সামির : [ অবাক হয়ে ] What happen?…

আসিফ : Don’t know [ বলেই অন্যদিক দৌড় দিলো ]

[ রাহুল স্নেহাকে নিয়ে একটি ক্লাসে ঢুকলে দেখে…কিছু জুনিয়র ছেলেমেয়ে বসে আড্ডা দিচ্ছে রাহুল মাথা নাড়িয়ে তাদের চলে যেতে ইশারা করলে সবাই বেড়িয়ে যায় ]

[ রাহুল স্নেহার দিক এগিয়ে আসলে স্নেহা পেছাতে থাকে ]

রাহুল : ওয়াও স্নেহা! আমি দু-তিনদিন ধরে তোমার পিছে ঘুরেও তোমার ডান্স পার্টনার হতে পারলাম না..আর ও দু-তিন মিনিট কথা বলেই তোমার ডান্স পার্টনার হয়ে গেলো?…

[ স্নেহা চুপ হয়ে দাঁড়িয়ে আছে ]

রাহুল : [ স্নেহার হাত চেপে কাছে টেনে নেই ] কি হলো জবাব দিচ্ছো না কেনো?…

স্নেহা : আহ! [ বলে চোখ বটে কপাল কুঁচকে ফেলে ]

রাহুল : [ তাড়াতাড়ি স্নেহার হাত ছেড়ে দেই ] সরি!😟

[ স্নেহা কিছু না বলে চলে যাচ্ছিলো হঠাৎ থেমে যায়, পেছন ফিরে দেখে রাহুল তার ওড়না ধরে আছে..]

রাহুল ধীরেধীরে স্নেহার দিক এগিয়ে আসলো… এবং স্নেহার হাত কাছে টেনে নিতে চাইলে স্নেহা..হাত পেছনে নিয়ে যায়…রাহুল জোড় করে হাত টেনে নেই…এবং দেখে হাতটা এখনো লালছে হয়ে আছে…

রাহুল : I m sorry sneha! I hurt you! [ রাহুল স্নেহার হাত মুখের কাছে এনে একটা চুমু খেলো ]

[ Sneha’s heart beating fast 💗]

স্নেহা তাড়াতাড়ি হাত সরিয়ে নেই! এবং ক্লাস থেকে বেড়িয়ে যায়!

[ কিছুক্ষণ পর রাহুল ও বেড়িয়ে হল রুমে ফিরে যায় ]

নেহা : [ রাহুলকে ধরে ] উফ! রাহুল কোথায় গিয়েছিলি?..কখন থেকে খুজছি!

রাহুল : কেনো?..

নেহা : আমাদের ডান্স Complete করতে হবে না?..

রাহুল : Dance with you?.. are you mad?.. [ বলেই রাহুল অন্য দিক চলে গেলো ]

জারিফা : [ এগিয়ে এসে ] হায় রাহুল!

রাহুল : Hey! what’s up?..

জারিফা : Well! 😉 স্নেহা কোথায় তোমার সাথে বেড়িয়েছে দেখলাম!

রাহুল : [ মনে মনে ] স্নেহা কোথায় মানে?..স্নেহা এইখানে আসেনি..তাহলে কোথায় গেছে!

জারিফা : You Ok?..😳

রাহুল : Yeah! I m ok! আ..স্নেহা আসেনি?..ও তো আমার আগে বেড়িয়েছে! [ চারদিক তাকিয়ে দেখলো স্নেহা কোথাও নেই! ]

হঠাৎ,

জারিফা : ঐ তো! স্নেহা তোমার পেছনে দেখো আসছে!

[ রাহুল পেছনে তাকিয়ে দেখে হ্যা স্নেহাই আসছে ]

জারিফা : স্নেহা কোথায় গিয়েছিলি?..

স্নেহা : জারিফা! আমি বাসায় যাচ্ছি!

[ রাহুল অবাক হয়ে তাকালো ]

জারিফা : আরে বাসায় যাচ্ছি মানে?..রিহরসে্ল শেষ হতে হতে তো ইভিনিং লাগবে…আর তুই ডান্স করছিস কার সাথে?..

রাহুল : [ এগিয়ে এসে ] আমার সাথে!

[স্নেহা অবাক হয়ে তাকায় ]

জারিফা : [এক্সাইটেড হয়ে ] ওয়াও! নাইস্

[ স্নেহা কিছু না বলে চলে যাচ্ছিলো ]

রাহুল : [ পেছন থেকে চেঁচিয়ে ] মিস্ স্নেহা! আমার রিহরসে্ল এর প্রয়োজন নেই! ঐ দিনের সব স্টেপ A to Z মনে আছে…

[ স্নেহা দাঁড়িয়ে একবার পেছন ফিরে রাহুলের দিক তাকায়… রাহুল চোখ টিপ মেরে তেডি স্মাইল দিতে থাকে স্নেহা তাড়াতাড়ি সামনের দিক হেটে বেড়িয়ে যায় ]

জারিফা : আরে মেয়েটা তো সত্যিই চলে গেলো!

রাহুল : ডোন্ট ওয়ারি ডিয়ার মে হু না?..

জারিফা : ওয়াহ! কিয়া ডায়লগ হে😋

[ রাহুল ও স্নেহার পিছু পিছু গেলো ]

স্নেহা বুঝতে পেরে জোড়ে হাটতে থাকে… রাহুল ও স্নেহার পাশে পাশে হাটছে.. স্নেহা তাকলেই রাহুল তেডি স্মাইল দিয়ে অন্যদিক তাকিয়ে ফেলে…

রাহুল : তুমি যতই ভাগো স্নেহা…আমি তোমার পিছু ছাড়ছি না…ডান্স তো তোমার আমার সাথেই করতে হবে!

স্নেহা : কেনো করছেন আপনি এসব…?..দেখেন আমার এসব মোটেও পছন্দ না…😣 [ স্নেহা জোড়ে হেটে চলে যাচ্ছে… আর রাহুল থেমে গিয়ে দেখছে..কোন ক্লাসটা খালি আছে ]

[ হঠাৎ পেছন থেকে রাহুল স্নেহাকে টেনে পাশের একটি ক্লাসে ঢুকে পরে ]

স্নেহা : [ অবাক হয়ে ] আজিব তো! বার বার এমন করার মানে কি?…

রাহুল : Listen স্নেহা!

স্নেহা : [ একটু রেগে ] ব্যাস! আর কোনো কথা শুনতে চাই না! প্লিজ! 🙏

[ পেছন ফিরে তাকাতেই দেখে স্নেহা দরজাটা বন্ধ, ঘাবড়ে গিয়ে স্নেহা তাড়াতাড়ি দরজা খুলতে যায়…টানতে থাকে কোনোভাবে দরজা খুলছে না… রাহুলের দিক তাকাতেই দেখে…রাহুল তেডি স্মাইল দিয়ে দাঁড়িয়ে আছে ]

স্নেহা : মানে কি?..আপনি দরজা কেনো বন্ধ করলেন?..

রাহুল : আমিতো তোমার আগেই ছিলাম আমি কবে দরজা বন্ধ করলাম!

স্নেহা : 😟 নিশ্চয় আপনার ফ্রেন্ডসরা করেছে তাই না?..

রাহুল : I don’t know! তোমার পেছনে দৌড়াতে দৌড়াতে হাপিয়ে পড়েছি! একটু রেষ্ট নেওয়া দরকার [ বলেই রাহুল একটা চেয়ারে বসে পড়ে ]

স্নেহা : রেষ্ট নিবেন..আর এইদিকে দরজা বন্ধ হওয়াতে আপনার কোনো টেনশন নেই?…

রাহুল : টেনশন হবে কেনো ভালোই তো লাগছে! 😉

স্নেহা : [ বিড়বিড় করে কি যেন বলে আবার দরজা খোলার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে ] এক্সকিউজ মি! কেউ আছেন প্লিজ দরজাটা খুলুন! [ অনেক্ষণ ট্রাই করার পর হয়রান হয়ে স্নেহা মাটিতে বসে পড়ে ]

রাহুল : [ তেডি স্মাইল দিয়ে ] মিস্ স্নেহা..😉 অনেক তো চেষ্টা চালালেন কিছু হলো?…

স্নেহা : দেখেন দরজার তো আর হাত নেই যে নিজে নিজে লক হয়ে যাবে! আপনি আপনার ফ্রেন্ডসদের বলুন দরজা খুলে দিতে..

রাহুল : কিভাবে বলবো… সেল্ফোন ফেলে এসেছি.. তুমি এনেছো?…

স্নেহা : আমিতো আমার ব্যাগ আমার ফ্রেন্ডসদের কাছে রেখে এসেছি😰

রাহুল : তাহলে কি আর করার এভাবেই..কাটাতে হবে..যতোক্ষণ না ওরা দরজা খুলে!

স্নেহা : এভাবে কাটাতে হবে মানে?…কিছু তো করেন…ট্রাই তো করতে পারেন…..

রাহুল : [ দরজার দিক এগিয়ে এসে ] হ্যালো! কেউ আছেন প্লিজ দয়া করে দরজাটা খুলে দিন! আমরা দুজন এখানে ফেঁসে আছি প্লিজ প্লিজ আমাদের প্রতি একটু দয়া করুন.. [ স্নেহার দিক তাকিয়ে ] এবার হয়েছে?..খুললো কেউ?..

[ স্নেহা একটু হেসে অন্যদিক ফিরে যায় ]
[রাহুল ব্লাশিং😋]

রাহুল : মাটিতে বসে আছো কেনো এইখানে অনেক চেয়ার আছে…

স্নেহা : এখানেই ঠিক আছি!

রাহুল : [ কিছুক্ষণ চিন্তা করে ] হুমম! ওকে [ বলেই স্নেহার পাশে বসে পড়ে ]

স্নেহা : আরে?.. আপনি এইখানে বসলেন কেনো…

রাহুল : কেনো কোনো প্রবলেম?..

স্নেহা কিছু না বলে রাহুল থেকে একটু দূরে হয়ে বসলো, রাহুল স্নেহার কাছে আসলো, স্নেহা আবারো একটু দূরে হয়ে বসলে রাহুল আবারো স্নেহার কাছে এসে যায়,

স্নেহা বিরক্তি হয়ে রাহুলের দিক তাকায়, [ রাহুল তেডি স্মাইল দিতে থাকে ] এবার স্নেহা ডিরেক্ট উঠে দাঁড়ায়..এবং সামনে এগিয়ে যেতে চাইলে..স্নেহার ওড়না টান খায়!.. নিচের দিক তাকালে দেখে..রাহুল স্নেহার ওড়নাটা অর্ধেক তার হাতে পেঁচিয়ে রেখেছে… রাহুলের দিক তাকালে রাহুল চোখ টিপ মারে ]

স্নেহা : [ রেগে কিছু বলতে যাবে ] আপনি..

রাহুল : আহা! স্নেহা! আমি কথা বাড়তি বলতে পছন্দ করিনা..ডিরেক্ট বলি.. সামনে এগুলে ওড়না আমার হাতেই থেকে যাবে..কিন্তু তুমি আলাদা হয়ে যাবে So চুপচাপ বসে পড়ো… নাহলে😉

স্নেহা : [ কিছুক্ষণ ওড়ানাটা টানাটানি করে ব্যর্থ হয়ে বসে পড়ে ] আপনি যা করছেন মোটেও

রাহুল : তাই?

স্নেহা : [ বিড়বিড় করে কি যেনো বলে অন্যদিকে ফিরে যায়]

After 5 hours,

মার্জান : জারিফা!

জারিফা : [ দৌড়ে এগিয়ে এসে ] হেই! তোরা?…..ভালো হয়েছে এসেছিস! জানিস..আমার ডান্স পার্টনার কে হয়েছে?…যে আমার র্যাগিং নিয়েছে সেই..হাহা…

শায়লা : দুশমান সে্ দোস্তি 😜

জারিফা : হ্যা😂

মার্জান : স্নেহাকে দেখছিনা যে?…

জারিফা : আ..স্নেহা ও.. হবে আর কি এইখানে কোথাও..

মার্জান : এইখানে কোথাও হবে মানে…তুই ওকে সাথে সাথে রাখবি না আজিব?..

জারিফা : আরে ও কি বাচ্চা নাকি?…গিয়েছে কোথাও হবে চলে আসবে তুই টেনশন করিস না…

মার্জান : ঠিকাছে আমরা কেন্টিনে কিছু খেয়ে আবার আসছি! তুই খেয়েছিস?..

জারিফা : হ্যা খেয়েছি!

[ মার্জান আর শায়লা চলে যায় ]

জারিফা : [ টেনশনে পড়ে ] আরে বাপরে…এই রাহুল স্নেহাকে নিয়ে কই গেলো ওরা আসার আগেই খুজে বের করতে হবে!

সন্ধ্যা ৭টা বেজে ৩০মিনিট!

স্নেহা : কি হলো কখন থেকে হা করে তাকিয়ে আছেন!

রাহুল : যতই দেখছি মন ভরছে না তাই😍

স্নেহা : কি?..

রাহুল : না মানে বলছিলাম যে…এতোক্ষণ চেয়ে খেয়াল করলাম তোমার নাকটা বোচা!

স্নেহা : [ নাক ধরে ] বোচা?..কিন্তু সবাই তো বলে আমার নাক খাড়া!

রাহুল : সবাই মিথ্যে বলেছে তুমি কষ্ট পাবে তাই… ও হ্যা আরেকটা জিনিষ তুমি চশমা পড়ে পার্ফেক্ট কাজ করেছো.. তোমার চোখ গুলো না একটু চাইনাবাসীদের মতো… ছোট ছোট…

স্নেহা চশমাটা ঠিক করে পড়ে অন্যদিক ফিরে যায়,

রাহুল : হি-হি রাগছো কেনো?..সবাই কি বলেছে তোমার চোখ বড় বড় 😉?.. সেটাও মিথ্যে বলেছে.. সবাই তোমাকে খুশি করার জন্যই হয়তো বলেছে

স্নেহা : [ বুঝতে পেরে ] হ্যা সবাই মিথ্যে বলেছে আপনি সত্যি বলেছেন তাই আপনাকে অনেক ধন্যবাদ!

রাহুল : [ হেসে ] হাহা It’s ok my pleasure! বাই দ্যা ওয়ে আরেকটা জিনিষ খেয়াল করলাম তোমার ঠোট..

স্নেহা : হয়েছে! হয়েছে! আর বলতে হবে না…

[রাহুল হাসতে থাকে😂]

স্নেহা : আপনি কি এইখানে রাত কাটাবেন ভাবেছেন নাকি?..

রাহুল : তুমি চাইলে অবশ্যই!

স্নেহা : [ অবাক হয়ে ] কিহ?..😨

রাহুল : কি করবো বলোতো ওরা খুলছে না আমার কি দোষ… কিছুক্ষণ আগেওতো চেঁচালাম… খুললো?

স্নেহা : [ হাতের ঘড়ির দিক তাকিয়ে ] ৭টা ওভার হয়ে যাচ্ছে…কোন দুপুর থেকে এই রুমে আটকে আছি…

রাহুল : আমার ও ইচ্ছে হচ্ছে না..কি করার রাত যতো বাড়ছে ভয় ও বাড়ছে…

স্নেহা : [ অবাক হয়ে রাহুলের দিক তাকিয়ে ] কেনো?..

রাহুল : কেনো আবার কি?…ঐ যে দেওয়ালে দেখো?.. পোষ্টার গুলো…

[ স্নেহা দেওয়ালের উপর পোষ্টার গুলোর দিক লক্ষ্য করলো…বিভিন্ন ধরনের কংকালের ছবি! ]

রাহুল : যারা ডাক্তারি পড়ছে…তারা এইখানে..ক্লাস করে…এবং মানুষের হাড্ডি-গুড্ডি পরীক্ষা করে…

স্নেহা : [ ভয়ে ঢোগ গিলছে ]

রাহুল : ইউ ওকে স্নেহা!

স্নেহা : [ ভীতু হয়ে ] হ্যা!

রাহুল : উফ গরম লাগছে…আমি একটু ঐদিকটা গিয়ে বসি! তুমি এইদিকেই বসো!

স্নেহা : [ চেঁচিয়ে রাহুলের হাত ধরে ] আরে আরে! আপনি কোথায় যাচ্ছেন?..

রাহুল : [ তেডি স্মাইল দিয়ে স্নেহার দিক তাকিয়ে ] পাশেই বসবো?..

স্নেহা : [ হাত ছেড়ে দিয়ে] এতোক্ষণ তো বসেই ছিলেন!

রাহুল স্নেহার পাশেই বসলো আর মনে মনে হাসতে থাকে…স্নেহার দিক তাকাতেই দেখে…স্নেহা ভয়ে ভেতরে মরে যাচ্ছে… রাহুল কিছুক্ষণ চেয়ে থেকে….স্নেহার মুঠি বাধা হাতের উপর হাত রাখলো….রাহুল খেয়াল করলো স্নেহার তার হাত সরাইনি…তারমানে মেয়েটা সত্যিই ভয় পেয়েছে…

রাহুল : So স্নেহা! কি ভেবেছো?…

স্নেহা : মানে?.?

রাহুল : ডান্স করছো তো আমার সাথে?..

স্নেহা : নাহ!

রাহুল : তাহলে ভেবে নাও দরজাটা আর আজ খুলছে না!

স্নেহা : মানে আপনি?…এই কারণে এতোক্ষণ দরজা বন্ধ করিয়ে রেখেছেন?..মানে যতোক্ষণ আমি হ্যা বলবো না ততোক্ষণ…

রাহুল : ততোক্ষণ দরজা খুলবে না!

স্নেহা : [ বিরক্তিকর বোধ করে অন্যদিক ফিরে গেলো ]

রাহুল : এইবার তুমিই ডিসা্ইড করো সারারাত ভূতের সাথে কাটাবা নাকি?…নাকি আমার ডান্স পার্টনার হবে..

স্নেহা : ওকে!

রাহুল : [ এক্সাইটেড হয়ে ] কি বললে?..আবার বলোতো?…

স্নেহা : ঠিকাছে আপনার ডান্স পার্টনার হবো!

রাহুল : প্রমিস্?

স্নেহা : [ একটু বড় শাস ফেলে ] হুম প্রমিস্

রাহুল : [ তেডি স্মাইল দিয়ে কিছুক্ষণ তাকিয়ে থাকে স্নেহার দিক তারপর পকেট থেকে মোবাইল বের করে দরজা খুলে দিতে বলে ]

স্নেহা : মোবাইল আপনার কাছেই তো ছিলো! আপনি মিথ্যা

রাহুল : এখনো বুঝোনি তুমি?..

স্নেহা আবার নাক ফুলিয়ে অন্যদিক ফিরে যায়,

রাহুল : হঠাৎ রাগলে না..তুমি লাল হয়ে যাও…তখন দেখতে আরো কিউট লাগে..😉

স্নেহা গিয়ে দরজা টান দিতেই দরজা খুলে যায়, এবং সামনে রাহুলের ফ্রেন্ডসদের দেখতে পাই…তারা স্নেহাকে দেখে মাথা নিচু করে অন্যদিক ফিরে যায়,

আসিফ : [ রাহুলের দিক এগিয়ে গিয়ে ] দোস্ত কি কি করলি?..😜

রাহুল : [ আসিফের মাথায় একটা বাড়ি দিয়ে ] তোর মাথা করেছি!

আনিল : দোস্ত ভাবী নিচে চলে যাচ্ছে…

রাহুল দৌড়ে গিয়ে দেখে স্নেহা এবং তার ফ্রেন্ডসরা মিলে চলে যাচ্ছে রাহুল স্নেহা বলে ডাক দিলে সবাই ফিরে তাকায়…

রাহুল : স্নেহা! তুমি প্রমিস্ করেছো!

মার্জান : [ স্নেহার কানে গিয়ে ] এই স্নেহা তুই আবার ওকে কি প্রমিস্ করলি?..

স্নেহা : [ ধীরো কন্ঠে ] ওর ডান্স পার্টনার হবো বলে😔

মার্জান : কিহ! তুই…ওর ডান্স
পার্টনার হবি?..😲

নূরা মেম : [ রাহুলের দিক এগিয়ে এসে ] রাহুল What’s wrong with you? কোথায় ছিলে?.. রিহরসে্ল শেষ! হয়েগেছে সব ডান্স টিচার্সরা চলে যাচ্ছে! আর তুমি..

রাহুল : এক এক মিনিট মেম! আপনি ওদের ম্যানেজ করে জাষ্ট ৫মিনিট ওয়েট করতে বলেন!

নূরা মেম : কিন্তু ৫মিনিটে তুমি কি রিহর্সেল করবে?..

রাহুল : রিহর্সেল করবো না…একদম ফাইনাল টাচ্ দেখাবো!

নূরা মেম : ওকে আমি ওদের বলছি আর তুমি ফার্ষ্ট করো..ওরা বেশিক্ষণ ওয়েট করবে না…[ বলেই নূরা মেম চলে যায় ]

রাহুল : [ স্নেহার দিক এগিয়ে এসে… ] চলো স্নেহা!

মার্জান : [ স্নেহার হাত ধরে.. ] আপনি শুনতে পাননি?..মেম কি বলেছে?. রিহর্সেল টাইম ওভার! সবাই সবার ডান্স শেষ করে বাড়ী যাচ্ছে So আপনি ও যান! আমাদের ও যেতে দেন! আর রিহর্সেল ছাড়া আপনাদের ডান্স কখনোই সিলেক্ট হবে না..

[ রাহুল আর কথা না বাড়িয়ে স্নেহার হাত ধরে টেনে নিয়ে ডিরেক্ট হল রুমে এন্ট্রি নিলো ]

শায়লা : আরে চলনা! আমরাও গিয়ে দেখি কি করছে!

মার্জান : কি আর দেখবি! গিয়েছে ডান্স করতে…😏

জারিফা : আরে চলতো [ বলেই মার্জানকে সহ টেনে নিয়ে যায় ]

[ সবাই হল রুমে গিয়ে দেখে রাহুল স্নেহাকে নিয়ে মাঝে দাঁড়িয়ে আছে.. এবং টিচার্সরা দল বেধে কি কি যেন বলা বলি করছে!]

শায়লা : টিচার্স গুলো কি কি বলছে নিজে নিজে?..

জারিফা : চুপ কর! আগে ওদের ডান্স দেখবে…তারপর সিলেক্ট হবে!

নূরা মেম : ওকে! রাহুল Show your dance!

রাহুল : স্নেহা.. ঐদিন যেমনটা ডান্স করেছো… ঠিক তেমনটাই করবে! আর যদি কোনো স্টেপ মনে না পড়ে… তাহলে আমার দিকই এগিয়ে আসবে!..আমার হাত ফলো করবা…

স্নেহা : [ মাথা নিচু করে ]😔 হবে না! আমার! ভয় করছে অনেক…

রাহুল : [ স্নেহার হাত ধরে ] কামঅন স্নেহা ট্রাই করো অবশ্যই হবে!

মার্জান : [ জারিফার কানে ] জারিফা!

জারিফা : হুম!

মার্জান : এই রাহুল স্নেহাকে ফিসফিসিয়ে কি বলছে?..

জারিফা : Love poetry বলছে হয়তো হিহি!

মার্জান : Disgusting!

রাহুল স্নেহাকে হাত বাড়ালে স্নেহাও ধীরে ধীরে হাত দেই!

রাহুল : কামঅন স্নেহা…স্টার্ট [ রাহুল স্নেহার কোমরে হাত রাখলে স্নেহার হার্টবিট ফার্ষ্ট হয়ে যায় ] আর কিছু না ভেবে রাহুল স্নেহাকে নিয়ে ডান্স করতে লাগলো… রাহুলের ডান্স স্টেপ দেখে স্নেহা অবাক হতে লাগলো.. রাহুল ঐদিনের প্রতিটা স্টেপ মনে রেখেছে…তারমধ্যে নিখুঁতভাবে সাজিয়ে ডান্স করছে…সিংগিং তো ভালো জানে শুনেছে…তবে ডান্স ও ভালো জানে…সেটাও প্রমান হলো.. ]

জারিফা : ওয়াও কি না লাগছে.. দুজনকে..পুরাই রোমিও জুলিয়েট..

মার্জান : [ অবাক হয়ে স্নেহা আর রাহুলের ডান্সই দেখছে…] Shut-up জারিফা😵ডান্স দেখ… Without রিহর্সেল!

শায়লা : হ্যা! আমিও তো তাই দেখছি!

[ অত:পর ডান্স শেষ হলো ]

[ সবাই তাদের দিক অবাক হয়ে তাকিয়ে আছে…After 2mins… মার্জান এক্সাইটেড হয়ে জোড়ে হাত তালি দিয়ে উঠলো…  স্নেহা রাহুলের কাছ থেকে সরে দাঁড়ায়]

নূরা মেম : well done! রাহুল! what a surprise! without রিহর্সেল এত্তো ভালো ডান্স করেছো…. সিলেক্ট আর আনসিলেক্ট ভাবার কি আছে?…তোমরা প্রোগ্রামে অবশ্যই পারফর্ম করছো…

রাহুল : থেংক ইউ মেম! [ টিচার্স রা পারফর্ম কার্ড এগিয়ে দিয়ে বেরিয়ে যায় ]

মার্জান : [ স্নেহা বলে দৌড়ে এগিয়ে এসে ঝড়িয়ে ধরে ] Congreats!

জারিফা : তুই এত্তো খুশি হচ্ছিস কেনো হঠাৎ!

মার্জান : [ রাহুলের দিক একবার তাকিয়ে আবার অন্যদিক ফিরে যায় ] আ..আমার ফ্রেন্ড স্নেহা! ডান্স Competition করছে…ও সিলেক্ট হয়েছে…তাই খুশি হয়েছি!

[ রাহুল স্নেহার দিক তাকিয়ে তেডি স্মাইল দিয়ে বেড়িয়ে যায়… স্নেহা রাহুলের চলে যাওয়া চেয়ে থাকে ]

চলবে…

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here